Sports Image

চলছে সেই একই গতিতে



১ ডিসেম্বর ২০১৪ সালে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সিরিজের ৫ম ও শেষ ওয়ানডে কথা কার কার মনে আছে। সেখানে ১১৫ নম্বর বাংলাদেশী হিসাবে ওয়ানডেতে অভিষেক হন সৌম্য সরকার। ঐ ম্যাচে ১৮ বলে ২০ রান করেন সৌম্য সরকার। ২০ রানের মধ্যে রয়েছে ৪ বাউন্ডারি।তখন থেকেই বোঝা গিয়েছিলো সৌম্য কতটা মারমুখী ব্যাটসম্যান।

সৌম্য সবদিক থেকে অলরাউন্ডার।তিনি ভাল ব্যাট করেন। যেকোনো পজিশনে তিনি ব্যাট করতে পারেন। তাকে যদি ওপেনিং হিসাবে ব্যাট করতে বলে তিনি করবেন আবার যদি বলে তিন নম্বর কিংবা পাচঁ নম্বর পজিশনে ব্যাট করতে তাও তিনি করতে পারবেন। সৌম্য ভাল বল করতে পারেন।এছাড়া তিনি উইকেট কিপারে দায়িত্ব পালন করতে পারেন।আর নাসিরের মতো সৌম্য অসাধারণ ফিল্ডিং করেন। তিনি অনেক ম্যাচে অসাধারণ ফিল্ডিং এবং ক্যাচ ধরেছেন।

বিশ্বকাপ, পাকিস্তান সিরিজ,ভারত সিরিজ এবং দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজ।সব জায়গাতেই তার পারফরমেন্স অসাধারণ।তিনি শুধু বাংলাদেশী মানুষদের না বিশ্বের সব ক্রিকেট প্রেমিক মানুষদের প্রিয় খেলোয়াড় হয়ে গেছেন।আশা করছি তিনি কিছুদিনে মধ্যে ওয়ানডেতে ব্যাটসম্যানদের র‍্যাঙ্কিংয়ে সেরা দশে চলে আসবেন