Food Image

বাসায় নুডলস বানিয়ে তবেই রান্না করুন



নুডুলস দেশি খাবার না হলেও বাঙালিদের প্রিয় একটি খাবার। অনেকেই প্যাকেট কিনে বাসায় রেখে দেয় পরবর্তীতে ব্যবহারের জন্যে। তারপর ব্রেকফাস্ট বা বিকেলের হালকা নাস্তায় খাওয়া হয় নুডুলস।এমনকি অনেক কর্মজীবী খাবারের ঝক্কি ঝামেলা কমাতে অফিসে দুপুরের খাবার হিসেবে অনেক সময়ই নুডুলস নিয়ে যান। সাধারণত এই নুডুলস পার্শ্ববর্তী মুদি দোকান থেকে কিনতে পাওয়া যায়। কিন্তু নুডুলস তৈরি করা খুব একটা বড় ব্যাপার নয়। আপনি চাইলে ঘরে বসেই তা তৈরি করতে পারেন। বলার অপেক্ষা রাখে না যে নিজের হাতের তৈরি নুডুলসের স্বাদই আলাদা। আসুন জেনে নেই কি করে ঘরে তৈরি করবেন নুডুলস।

উপকরণ
১। ৩০০ গ্রাম ময়দা
২। আরো খানিকটা ময়দা (মাখা ময়দার তাল গড়িয়ে নেয়ার জন্য)
৩। ১ টেবিল-চামচ (১৫ গ্রাম) লবণ
৪। ৩/৪ কাপ (১৫০ মিলিলিটার) হালকা গরম পানি

প্রণালি
১। প্রথম পানি গরম করে লবণ মিশিয়ে নিতে হবে । বড় গামলায় ময়দা রেখে লবণ পানি যোগ করতে হবে। হাত দিয়ে ভালভাবে মিশিয়ে গোলাকার ময়দার তাল তৈরি করতে হবে । রুটি বেলা পিঁড়ির উপর ময়দার তাল নিয়ে ভাল করে হাত দিয়ে ঠেসে ঠেসে মেখে মেখে নিতে হবে।

২। মাখা ময়দার তাল একটি প্লাস্টিকের ব্যাগের মধ্যে ভরে কমপক্ষে ৩০ মিনিট রেখে দিতে হবে। রুটি বেলার পিড়ির উপর হালকা করে ময়দা ছড়িয়ে দিয়ে ময়দার তাল তার উপর গড়িয়ে নিতে হবে।

৩। এবারে বেলুন দিয়ে বেলে মোটামুটি ৩ মিলিমিটার পুরু করে ফেলতে হবে। তারপর এই বড় পুরু করে বেলা রুটিটি কয়েকবার ভাঁজ করতে হবে যেন চওড়ায় ৭ সেন্টিমিটার হয়। এর উপরও ময়দা ছড়িয়ে নিতে হবে। ৩ মিলিমিটার চওড়া করে ভাঁজ করা বড় পুরু রুটিটি ফিতার মত কেটে নিয়ে ফিতাগুলোকে আলাদা আলাদা করে নিতে হবে এবং ভাঁজ খুলে রাখতে হবে। নিশ্চিত হতে হবে যেন, কাটা অংশে হালকা ময়দার আবরণ থাকে ।

৪।বড় একটি সসপ্যানে পানি নিয়ে ফুটিয়ে নুডুলস্ ৮-১০ মিনিট সিদ্ধ করতে হবে । পানি ফেলে দিয়ে ঠাণ্ডা পানি দিয়ে নুডুলস্ ধুয়ে নিয়ে আবারও পানি ফেলে দিতে হবে।

এবার এই নুডুলস যা খুশি তাই দিয়ে রান্না করে ঝটপট খেয়ে নিন। এভাবে খুব সহজেই নুডুলস রান্না করা যায়। আবার নুডুলস রান্না করারও অনেক পদ্ধতি আছে। যেমন, ইজি নুডুলস উইথ সাম মিক্স ভেজিটেবলস, সায়ামিট দিয়ে নুডুলস, চিংড়ি মাছ দিয়ে নুডুলস কিংবা ডিম দিয়ে নুডুলস আরো কত কি! তবে খাবারের বৈচিত্রের জন্য আজ আমরা দেখাবো কিভাবে দুধ নুডুলস বানাতে হয়। স্বাদ পাল্টানোর জন্যে সবাই এটি খেয়ে দেখতে পারেন।

রান্নার উপকরন :

১। আপনার বানানো নুডুলস – ১৫০ গ্রাম
২। গুড়ো দুধ -২০০ গ্রাম
৩। চিনি - পরিমাণ মত
৪। নারিকেল কুচি-পরিমাণ মত
৫। এলাচ – পরিমাণ মত
৬। লবন-পরিমাণ মত

রন্ধন প্রণালীঃ
১। হালকা গরম পানি দিয়ে গুড়া দুধ, চিনি মিশিয়ে নিয়ে চুলায় গরম করতে দিতে হবে। এ সময় দুধ আর চিনির মিশ্রণ বার বার নাড়তে থাকতে হবে। কিছুক্ষণ পর এলাচ ছেড়ে মিশ্রণের মধ্যে ছেড়ে দিতে হবে।

২। অন্য একটা চুলায় পানি নিয়ে ফুটিয়ে নিতে হবে।

৩। পানি ফুটে যাওয়ার সাথে সাথে নুডুলস ছেড়ে দিতে হবে। ঘড়ি ধরে ৩ থেকে ৪ মিনিট তা সিদ্ধ করতে হবে। এরপর চুলা থেকে নামিয়ে পানি ঝড়িয়ে নিতে হবে।

৪। দুধ ঘন হয়ে আসলে তার মধ্যে ঝেড়ে নেওয়া নুডুলস ছেড়ে দিয়ে আস্তে আস্তে নাড়তে হবে। হালকা আঁচে মিনিট দশেক চুলার উপর রাখতে হবে। সব উপকরণ ভাল ভাবে মিশে গেলে নারিকেল কুচি ছেড়ে দিয়ে দশ থেকে বার সেকেন্ড পর চুলা থেকে নামিয়ে ফেলুন।

এটি গরম গরম যেকোন সময় নাস্তা হিসেবে পরিবেশন করতে পারেন। তবে ফ্রিজে রেখে ঠান্ডা করেও খেতে পারেন। দুধ নুডুলস ঠান্ডা অবস্থায় খেতে আরো বেশী ভাল লাগে।