Entertainment Image

শেষ চুম্বন



১৯২৭ সালের দিকে নির্মাণ শুরু হয়েছিল প্রথম পূর্ণদৈর্ঘ্য বাংলা চলচ্চিত্র ‘দ্য লাস্ট কিস’। নির্বাক এ ছবিটি ঢাকার মুকুল হলে (অধুনা আজাদ হল) ১৯৩১ সালে মুক্তি পায়। এর পরিচালক ছিলেন জগন্নাথ কলেজের তৎকালীন ক্রীড়াশিক্ষক অম্বুজপ্রসন্ন গুপ্ত। নওয়াব পরিবারের উদ্যোগে ঢাকায় ইস্ট বেঙ্গল সিনেমাটোগ্রাফ কোম্পানির প্রযোজনায় অম্বুজপ্রসন্ন গুপ্ত এটি নির্মাণ করেন। এর নায়ক ছিলেন খাজা আজমল আর নায়িকা ছিলেন ললিতা। এছাড়া অভিনয় করেন খাজা আদিল, খাজা আকমল, খাজা শাহেদ, খাজা নসরুল্লাহ, শৈলেন রায় বা টোনা বাবু।

নায়িকা ললিতা ছিলেন লোলিটা বুড়ি নামের এক যৌনকর্মী। এ ছাড়া চারুবালা, দেববালা বা দেবী নামের আরও দুই যৌনকর্মী এতে অভিনয় করেন।
বাংলা চলচ্চিত্রের এই ঐতিহাসিক ছবিটির অনুপ্রেরণা থেকে পরিচালক মুন্তাহিদ লিটন নির্মাণ করতে যাচ্ছেন শেষ চুম্বন। তবে এটি ‘দ্য লাস্ট কিস’ এর ছায়া অবলম্বনে নয়। শেষ চুম্বন নির্মিত হচ্ছে সমসাময়িক প্রেক্ষাপট নিয়ে। এই ছবিতে তিনি তুলে ধরার চেষ্টা করবেন পারিবারিক নির্যাতনের শিকার শিশুদের করূণ অবস্থার চিত্র।

ছবিতে মূল ভূমিকায় অভিনয় করবেন শিশুশিল্পী রাইসা। নায়ক-নায়িকার ভূমিকায় দেখা যাবে সানজিদা তন্ময় ও নবাগত সাগর আহমেদকে। ছবিতে আরও অভিনয় করবেন শিমুল খান।

পরিচালক বলেন, ‘ছবিতে পারিবারিক শিশু নির্যাতনের বিষয়টিই ফুটিয়ে তোলার চেষ্টা করবো। একজন বাবা তার মেয়েকে সবসময় নির্যাতন করতো। কিন্তু মৃত্যুর সময় তার বোধোদয় হয় যে তিনি অন্যায় করেছেন। তাই তিনি মেয়েকে শেষবারের মতো একটি চুমু খেতে বলেন। গল্পটা এমনই।’

এ মাসের ১০ তারিখে একটি সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে আনুষ্ঠানিক ঘোষণা দিবেন পরিচালক।