Food Image

ইফতারে ঠাণ্ডা ঠাণ্ডা ‘ফ্রুট কাস্টার্ড’



ইফতারে প্রতিদিন ভাজাপোড়া খাওয়া স্বাস্থ্যের জন্য একেবারেই ঠিক নয়। অতিরিক্ত ভাজপোড়ার সমস্যা পেটে গ্যাস, বুক জ্বালাপোড়া ও অস্বস্তির মূল কারণ। তাই ইফতার করুন স্বাস্থ্যকর কিছু খাবার দিয়ে। স্বাস্থ্যকর খাবারের কথা মন হতে প্রথমেই মাথায় আসে ফলমূলের কথা। আজকে এই ফলমূলের তৈরি দারুণ একটি স্বাস্থ্যকর খাবারের রেসিপি জেনে নিন। খুব ঝটপট তৈরি করে নিন ঠাণ্ডা ঠাণ্ডা ‘ফ্রুট কাস্টার্ড’। আর এই খাবারটি স্বাস্থ্যের পাশাপাশি এই গরমেও প্রশান্তি এনে দেবে। চলুন শিখে নেয়া যাক রেসিপিটি।

উপকরণঃ
- দেড় লিটার দুধ
- ৪ টেবিল চামচ কাস্টার্ড পাউডার
- চিনি (আপনি যতোটা মিষ্টি চান)
- আধা কাপ আপেল
- আধা কাপ আম
- আধা কলা
- ১/৪ কাপ কমলা
- ১/৪ কাপ আঙুর
- আধা কাপ বেদানার দানা
- ৩ টেবিল চামচ কিশমিশ
- বাদাম কুচি ইচ্ছে মতো
- খেজুর কুচি ইচ্ছে মতো
* আপনি আপনার পছন্দ মতো ফল ছোট কিউব করে বা পাতলা স্লাইস করে ৩ কোণা করে কেটে নিতে পারেন।

পদ্ধতিঃ
- প্রথমে একটি প্যানে দুধ জ্বাল দিয়ে ফুটিয়ে নিন ভালো করে। ফুটে উঠা দুধ থেকে পৌনে ১ কাপ পরিমাণ দুধ আলাদা করে বাটিতে তুলে নিয়ে ঠাণ্ডা হতে দিন।
- দুধ জ্বাল দিয়ে খানিকটা ঘন হয়ে এলে এতে চিনি দিয়ে জ্বাল করতে থাকুন। এবং আলাদা করে রাখা দুধ ঠাণ্ডা হলে এতে কাস্টার্ড পাউডার দিয়ে ভালো করে মিশিয়ে রাখুন। লক্ষ্য রাখবেন যাতে দলা ধরে না থাকে, পুরোটা ভালো করে গুলে নেবেন।
- দুধ আরেকটু ঘন হয়ে এলে এতে দুধ-কাস্টার্ডের মিশ্রণটি আস্তে আস্তে দুধের মধ্যে ঢেলে ঘন ঘন নেড়ে নিন ফুটে উঠা পর্যন্ত। ঘন ঘন নাড়ার কাজটি হুইস্কার দিয়ে করতে পারেন অর্থাৎ ডিম ফেটানোর হুইস্কার অথবা কাটা চামচ। কারণ এতে করে দলা ধরবে না।
- এরপর মিশ্রণটি নামিয়ে একটি পরিবেশন পাত্রে অর্ধেকটা ঢেলে দিন। খানিকটা ঠাণ্ডা হয়ে এলে এর উপরে একটি একটি করে ফলের লেয়ার দিন এবং বাকি অর্ধেকটা দুধের মিশ্রন ঢেলে দিন।
- সবার উপরে বাদাম ও খেজুর কুচি সাজিয়ে দিন এবং দুধের মিশ্রন ঠাণ্ডা হয়ে এলে ফ্রিজে রেখে সেট হতে দিন ভালো করে। পুরোপুরি ঠাণ্ডা হলে কিংবা পছন্দমতো ঠাণ্ডা হয়ে এলে পরিবেশন করুন অত্যন্ত সুস্বাদু ঠাণ্ডা ঠাণ্ডা ‘ফ্রুট কাস্টার্ড’।