"স্বাস্থ্য" বিভাগের পোস্ট ক্রমানুসারে দেখাচ্ছে

নূর মোহাম্মদ নূরু

৪ বছর আগে লিখেছেন

আন্তর্জাতিক সেবিকা দিবসে আধুনিক নার্সিং সেবার অগ্রদূত ফ্লেরেন্স নাইটিঙ্গেলের ১৯৫তম জন্মবার্ষিকীতে ফুলেল শুভেচ্ছা

মানবসেবায় অনন্য দায়িত্বপালনকারী সেবিকাদের স্বীকৃতি ও সম্মান প্রদর্শনের দিন আন্তর্জাতিক সেবিকা দিবস আজ। আধুনিক নার্সিংয়ের প্রবর্তক মহীয়সী সেবিকা ফ্লোরেন্স নাইটিংগেলের সেবাকর্মের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে তার জন্মদিন ১২ মে আন্তর্জাতিক নার্স দিবস পালন করা হয় আন্তর্জাতিক নার্স দিবস। মানবসেবার মহান ব্রত নিয়ে যারা দিন রাত মানুষের সেবা করে থাকেন তারাই সেবিকা। রোগীর জন্য একজন ডাক্তারের পরামর্শের চেয়ে কোনো অংশেই কম গুরুত্বপূর্ণ নয় সেবিকার সেবা। বিশ্বের অন্যান্য দেশের মতো বাংলাদেশেও এ দিবসটি পালন করা হচ্ছে। এ বছর দিবসের প্রতিপাদ্য ‘নার্সঃ পরিবর্তনের এক সহায়ক শক্তি ব্যয় সাশ্রয়ী কার্যকর সেবা প্রদানের ক্ষেত্রে।’আধুনিক নার্সিংয়ের প্রবর্তক মহীয়সী সেবিকা ফ্লোরেন্স নাইটিংগেলের সেবাকর্মের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে তার জন্মদিন... continue reading

৫৩৬

সোহেল আহমেদ পরান

৪ বছর আগে লিখেছেন

ফিরে এলাম ভালোবাসায়

এক সপ্তাহ পর বাসায় ফিরলাম। দ্বিখণ্ডিত বাঁ বাহুতে আটটি স্ক্রু যোগে সংযুক্ত করা হয়েছে একে। আমি কৃতজ্ঞ আল্লাহর কাছে – এর চেয়ে বড় কিছু হতে পারতো। আমি কৃতজ্ঞ আমার অফিসের সবার কাছে – তাঁরা প্রয়োজনীয় সব ব্যবস্থা নিয়েছেন তড়িৎ। আমি কৃতজ্ঞ আমার সহব্লগার ও লেখকবন্ধুগণকে – অনেকেই খোঁজ নিয়েছেন, অনেক উপকার করেছেন । আমি এখানে একটা নূতন পরিবারের সান্নিধ্য পেয়েছি।
আমার বাঁ হাত এখনো অচল। তাই বিস্তারিত জানাতে পারছি না। আমি কৃতজ্ঞ সেই রিকশাওয়ালা ভাইটির কাছে- যিনি রাস্তায় কাতরানো আমাকে নিকটের ক্লিনিকে নিয়ে গেছেন প্রথম। আমার কোনো কষ্ট নেই – যে ভদ্রলোক পেছন থেকে আমাকে গত বৃহঃবার সন্ধ্যায় তার... continue reading

১৬ ৫৩৬

ফারজানা মৌরি

৪ বছর আগে লিখেছেন

আঙুর স্বাস্থ্যের জন্য এত ভালো কেন?

দেবতার রক্ত সম্ভবত আঙুর প্রথম এসেছে কৃষ্ণসাগরীয় অঞ্চল থেকে৷ তবে আজকাল বেশিরভাগ আঙুর আসে ভূমধ্যসাগরীয় অঞ্চল থেকে৷ প্রাচীন গ্রিকদের কাছে পাঁচ হাজার বছর আগে থেকে আঙুরের তৈরি ওয়াইনকে ‘দেবতার রক্ত’ বলা হতো, যা আজও প্রতীকি চিহ্ন বহন করে৷
আঙুরের বাগান  
জার্মানিতে প্রচুর আঙুরের বাগান রয়েছে৷ সারা বিশ্বে যত রকম গাছের চাষ করা হয়, সেগুলোর মধ্যে আঙুর সবচেয়ে পুরনো৷
সুন্দর ফল আঙুর  
আঙুর শুধু দেখতেই সুন্দর নয়, খেতেও সুস্বাদু ফল৷ তবে হালকা সবুজ রংয়ের আঙুর থেকে লাল বা গাঢ় সবুজ রংয়ের আঙুরে বেশি অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট রয়েছে৷ আঙুরে ভিটামিন সি তেমন না থাকলেও আঙুর ইনফেকশন থেকেও রক্ষা করতে সাহায্য... continue reading

৫৬৩

ডাক্তার দ্যা বৈজ্ঞানিক

৪ বছর আগে লিখেছেন

নবীজির প্রিয় খাবারগুলোর দৃশ্যমান বাহ্যিক উপকারিতা...

নবীজী (সা.) এর প্রিয় খাবারের মধ্যে রয়েছে-
বার্লি, খেজুর, ডুমুর, আঙ্গুর, মধু, তরমুজ, দুধ, মাশরুম, অলিভ অয়েল, ডালিম-বেদানা, ভিনেগার ও পানি। এসব খাবারের গুণাবলী এখানে উল্লেখ করা হলো---
১. বার্লি (জাউ): এটা জ্বরের জন্য এবং পেটের পীড়ায় উপকারী।
২. খেজুর: খেজুরের গুণাগুণ ও খাদ্যশক্তি অপরিসীম। খেজুরের খাদ্যশক্তি ও খনিজ লবণের উপাদান শরীল সতেজ রাখে। প্রিয়নবী (সা.) বলতেন, যে বাড়িতে খেজুর নেই সে বাড়িতে কোনো খাবার নেই। এমনকি প্রিয়নবী (সা.) সন্তান প্রসবের পর প্রসূতি মাকে খেজুর খাওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন।
৩. ডুমুর: ডুমুর অত্যন্ত পুষ্টিকর ও ভেষজ গুণসম্পন্ন, যাদের পাইলস ও কোষ্ঠকাঠিন্য আছে তাদের জন্য
অত্যন্ত উপযোগী খাবার। 
৪. আঙ্গুর: প্রিয়নবী (সা.) আঙ্গুর খেতে অত্যন্ত ভালো বাসতেন। আঙ্গুরের পুষ্টিগুণ ও খাদ্যগুণ অপরিসীম। এই খাবারের উচ্চ খাদ্য শক্তির কারণে এটা থেকে আমরা তাৎক্ষণিক এনার্জি পাই এবং এটা স্বাস্থ্যের জন্য উপকারী। আঙ্গুর কিডনির জন্য... continue reading

১৬৬৪

অচেনা বন্ধু

৪ বছর আগে লিখেছেন

একটানা বসে থাকার ক্ষতি থেকে মুক্তির উপায়...

শারীরিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত বা আহত হতে হলে ছোট-বড় কোন ধরণের দুর্ঘটনার শিকার হতে হয়। আসলে বসে থাকার মতো আপাতদৃষ্টিতে নির্দোষ একটি কাজের মাধ্যমেও শরীরের বিভিন্ন অঙ্গের ক্ষতি হওয়া সম্ভব। ভয় পেয়ে গেলেন?
বিবর্তনের ধারায় মানুষের শরীর এমনভাবেই তৈরি হয়েছে যাতে আমরা সবসময়েই নড়াচড়ার মাঝে থাকতে পারি। এ কারণে দীর্ঘক্ষণ বসে থাকলে শরীরের ক্ষতি হওয়াটা অনিবার্য। অফিস শেষে বারি গিয়ে অনেক সময়েই আপনি বুঝতে পারেন না ঠিক কি কারণে আপনার মাথা ধরে আছে অথবা পিঠের ব্যাথায় নড়াচড়া করতে পারছেন না। দেখে নিন বসে থাকার কারণে কিভাবে আপনার ক্ষতি হচ্ছে এবং কী কৌশলে এই ক্ষতি কমিয়ে আনতে পারেন আপনি।
১) যদি আপনার নিতম্ব... continue reading

৭০২

প্রবাসী একজন

৪ বছর আগে লিখেছেন

ঘুম নিয়ে প্রবলেম

কয়েকদিন ধরে ঘুম নিয়ে খুব সমস্যা হচ্ছে। তাই আজ যখন ঘুমাতে যাওয়ার সময় হল তখন ভাবলাম এ নিয়ে একটু পড়াশোনা করা যাক। 
পড়ে যে জিনিসটা বুঝলামঃ
১। বিছানা আরামদায়ক হতে হবে। আমার সেটা আছে।
২। ঘরের তাপ আরামদায়ক হতে। এটাও আমার আছে।
৩। বাথরুমের গন্ধ যেন ঘরে না আসে। এটিতে সবচেয়ে ভাল অবস্থা আমার ঘরের।
৪। পর্দা ব্যবহার করে বাইরের কাল অন্ধকারকে ঢেকে দিতে বলছে। এটাও ঢেকে দেওয়া আছে।
৫। ঘরে কোন রাস্তার শব্দ আসবে না। আমি মাটি থেকে এত উপড়ে থাকি ক্যামনে শব্দ শুনব 
৬। টেলিভিশন ঘরের বাইরে রাখতে হবে। আলবত আমার টিভি শোয়ার ঘরের বাইরে।
এত কিছুর পর ক্যান আমার ঘুম... continue reading

৭৭৯

অচেনা বন্ধু

৪ বছর আগে লিখেছেন

কম্পিউটারের নীল আলো থেকে চোখ রক্ষা হবে যেভাবে...

কম্পিউটার এখন অধিকাংশ মানুষেরই কাজ আর অবসরের সঙ্গী। এ যন্ত্রটি ব্যবহারের কিছু ক্ষতিকর দিকও রয়েছে। কম্পিউটার থেকে বের হওয়া ক্ষতিকর নীল আলো চোখের জন্য মারাত্মক সমস্যা তৈরি করতে পারে। একটানা কম্পিউটার ব্যবহারে ডিজিটাল আই স্ট্রেইন বা কম্পিউটার ভিশন সিনড্রোমের মতো সমস্যা তৈরি হতে পারে। মাথাব্যথা, চোখ ব্যথা, চোখে পানি ঝরা বা শুষ্কতা, ফোকাস নষ্ট হওয়ার বিষয়গুলো ডিজিটাল আই স্ট্রেইনের সঙ্গে সম্পর্কিত। তবে আশার কথা হচ্ছে, মার্কিন চিকিত্সকেরা বেশ কিছু পরামর্শ দিয়েছেন যা কম্পিউটার ভিশন সিনড্রোম বা এ ধরনের পরিস্থিতি এড়াতে সাহায্য করতে পারে।
কম্পিউটারে ধুলো, ময়লা কিংবা আঙুলের ছাপ পড়তে দেবেন না। ধুলা ময়লা পরিষ্কার করে ফেলুন। কারণ এগুলোর কারণে... continue reading

৬৫২

ডাক্তার দ্যা বৈজ্ঞানিক

৪ বছর আগে লিখেছেন

বয়সটা কি একটু বেশি??? তাহলে লুকিয়ে ফেলুন!!!

১. সপ্তাহে তিন দিন রাতে ভালো মানের মধু খান ও চেহারায় মেখে ধুয়ে ফেলুন।
২. অবশ্যই নিয়মমাফিক পানি পান করুন।
৩. অস্বাস্থ্যকর খাবার এড়িয়ে চলুন।
৪. পছন্দের বা বিনোদনমূলক স্থানগুলো ভ্রমণ করুন।
৫. ছলনা করবেন না। ভালোবাসায় ছলনা আপনাকে অচিরেই বুড়িয়ে দেবে।
৬. জীবনসঙ্গীর সাথে বেশি সময় কাটান।
৭. নিজের চেয়ে বয়স বেশি, এমন মানুষের সঙ্গে সময় কাটান বেশি বেশি।
৮. ইতিবাচক চিন্তা করুন। নেতিবাচক চিন্তা চেহারায় বসয়ের ছাপ ফেলে।
৯. চোয়াল খানিক এলিয়ে থাকতে দিন। মুখের ভারিক্কি ভাব দূর হয়ে যাবে।
১০. শিরদাঁড়া সোজা রেখে দাঁড়িয়ে থাকার অভ্যাস করুন।
১১. সুযোগ পেলে নাচুন।
১২. বেশি বেশি মন খুলে হাসুন।
১৩. মন থেকে ভালোবাসুন বই, গাছ, আকাশ।
১৪. সবসময় উদ্যমী ও প্রাণবন্ত থাকুন।
১৫. নিয়ম করে ঘুমান।
১৬. বৃক্ষজাত খাবার বেশি খান।
১৭. মুটিয়ে যাবেন না কখনই। মুটিয়ে যাওয়া মানেই নিজেকে বয়সী করে তোলা। continue reading

১১১৯

ডাক্তার দ্যা বৈজ্ঞানিক

৪ বছর আগে লিখেছেন

লাগবে নাকি? এ যে মধু! :D

মধু তার অসাধারণ ঔষধি গুনের কারনে প্রাচীনকাল থেকে ব্যবহৃত হয়ে আসছে। মধুর মধ্যে রয়েছে ভিটামিন বি১, বি২, বি৩, বি৫, বি৬, আয়োডিন, জিংক ও কপার সহ অ্যান্টিব্যাকটেরিয়াল ও অ্যান্টিমাইক্রোবিয়াল উপাদান যা আমাদের শুধুমাত্র দেহের বাহ্যিক দিকের জন্যই নয়, দেহের অভ্যন্তরীণ অঙ্গ প্রত্যঙ্গের সুরক্ষায় কাজ করে।   সর্বগুন সম্পন্ন এই মধুর গুনের কথা বলে শেষ করা যাবে না। স্বাস্থ্য সুরক্ষা, চিকিৎসা, সৌন্দর্য চর্চা- কোথায় নেই মধুর ব্যবহার? আসুন দেখে নেয়া যাক মাত্র এক চামচ মধু কি কি অসাধারণ উপকারে লাগতে পারে আপনার।
১) মধু হিউম্যাকটেন্ট যৌগে সমৃদ্ধ। এই যৌগটি ত্বকের আর্দ্রতা ধরে রাখার কাজ করে এবং ত্বকের উপরিভাগের ইলাস্টিসিটি বজায় রাখে।... continue reading

২২২৯

রাজু আহমেদ

৪ বছর আগে লিখেছেন

তরুন প্রজন্ম বাঁচাতে মাদকের লাগাম টানুন

জীবনের শত ব্যস্ততার মধ্যে মাত্র দু’দিনের অবসর পেলেও জন্ম ভূমিতে ছুটে যাওয়ার নিরন্তর চেষ্টা করি । কখনও সফল হই আবার কখনও যাওয়া হয়ে ওঠে না । বাংলাদেশের প্রত্যন্ত গ্রামাঞ্চল বলতে যা বোঝায় তেমনি একটি গ্রামে আমার জন্ম । তবুও সেই গ্রামটিই আমার সব, অতীত-ভবিষ্যত । সবুজ-শ্যামল প্রকৃতি, ছোট বেলায় দূরন্ত ছুটে চলার কথা স্মৃতির পাতায় কেবল ভেসে ওঠে এবং শিহরণ দেয় । সেই প্রিয় গ্রামটিতে ফিরে ঠিকই যাই কিন্তু আগের মত আনন্দ পাই না । আমার সুখ-শান্তি তো শুধু আমার একার উপর নির্ভর করে না । এজন্য গ্রামবাসীর মধ্যেও আনন্দ উল্লাস থাকা চাই । ছোট্ট বেলা থেকেই আমার সাথে আমার... continue reading

৪৩৭