Site maintenance is running; thus you cannot login or sign up! We'll be back soon.

"রসরচনা" বিভাগের পোস্ট ক্রমানুসারে দেখাচ্ছে

মাহমুদ আশিক

৫ বছর আগে লিখেছেন

পছন্দ সাদৃশ্য হতে পারে কন্যা; কিন্তু অনুভব ভিন্ন, পুরোপুরি নিজস্ব।

খুব পছন্দ করে কেনা নতুন লাল টিশার্ট টা পরে বেরিয়েছি। হাটছি পিচঢালা পথে। ব্যস্ত নগরীতে সবাই ছুটছে। চায়ের দোকানে গিয়ে বসেই এক কাপ দুধ চায়ের অর্ডার। হাল্কা লিকার, বেশি দুধ চিনি। চায়ের কাপে চুমুক দিতেই অপর পাশ থেকে একটি রিকশায় করে একটি ছেলে নামলো তার পকেটে থাকা বেনসন সিগারেট ধরাতে। ছেলেটি বেশ স্মার্ট । কিন্তু তাকে দেখে আমি কেমন যেন লজ্জায় পড়লাম। একটু আড়ালে লুকাতে চাইলাম নিজেকে। ছেলেটি চলে গেল। ছেলেটির গায়ে ঠিক আমার টিশার্টের আরেকটা পিস। বলি হাজারো টিশার্টের মাঝে তোর কিসের জন্য এই টিশার্টটাই কিনতে হবে?
এরকম পরিস্থিতিতে পড়লে কেন জানি জার্সির ফিলিং না এসে আসে একটু বিব্রত... continue reading

৪৩৪

জাওয়াদ আহমেদ অর্ক

৫ বছর আগে লিখেছেন

~ ক্লোজড সাইনেডাই ~

গুম , একটি অতি দ্রুত নিঃসৃত শব্দ তবুও চলমান বাক্যে স্থির রেখে চলছে চোখের পাতা , সময় আর সামরিক আহাজারি । মধ্যবিত্তের গণ্ডি তখন এই শব্দের লংগিচুড নির্ধারণে ব্যস্ত । অক্সফোর্ডের আলো জ্বলছে পত্রিকার কলামে ছড়িয়ে ছিটিয়ে । ধীর হয়ে আসা টকশোগুলো আবারো জেঁকে বসলো , সোফায় বসা অ-রাজনৈতিক দর্শকের মাথায় । অ-রাজনৈতিক কারণ তারা দল-ভেদে আর কোন " খুন-লুটপাট " এর দোষ চাপিয়ে দিতে পারছে না । ঘন ঘন হাই তুলছে মুদীর দোকানদার । ব্যবসায় ভাটা পরবে মনে হয় । অন্তত এমনটাই ধরে নিয়েছে অলি গলির জাতিস্মরেরা । নারায়ণগঞ্জ , জোর গলায় উঁচিয়ে ধরলেন এক নেতা যেন গলার... continue reading

৪৪৩

তাওহিদুল ইসলাম নোমান

৫ বছর আগে লিখেছেন

প্রার্থনা করি

প্রার্থনা করি
আমি প্রার্থনা করি,
সূর্যাস্তের।
আমি প্রার্থনা করি,
আধারের।
আমি প্রার্থনা করি,
তিমির রাত্রির।
আমি প্রার্থনা করি,
অমাবস্যা রাত্রির মত;
কালো আধারের।
আমি প্রার্থনা করি,
সূর্যদয়ের।
আমি প্রার্থনা করি,
নতুন ভোরের।
আমি প্রার্থনা করি,
নতুন দিনের।
আমি প্রার্থনা করি,
নতুন আলোর।
যে আলোয় দূর হবে
তমানিশার যত কালো।
আমি প্রার্থনা করি,
ভুলের।
আমি প্রার্থনা করি,
তারুণ্যের।
আমি প্রার্থনা করি,
ভাংতে।
আমি প্রার্থনা করি,
নতুন করে গড়তে।
আমি প্রার্থনা করি,
ভুলতে।
আমি প্রার্থনা করি,
নতুন করি শিখতে।
আমি প্রার্থনা করি,
সমালোচনার।
আমি প্রার্থনা করি,
জাবাব দেয়ার।
আমি প্রার্থনা করি,
হিংসার।
আমি প্রার্থনা করি,
নব উদ্যমে এগিয়ে চলার।
আমি প্রার্থনা করি,
ধ্বংসের।
আমি প্রার্থনা করি,
সৃষ্টির।
continue reading

৫১৫

রাজীব নূর খান

৫ বছর আগে লিখেছেন

কোনো কোনো দিন এমনও হয়

ধরুন, আপনার স্ত্রী তার বাপের বাড়ি যাবার অনুমতি চাইলো। আপনি যদি না করেন, স্ত্রী বলবে, ” আমাকে তুমি চাকরাণী পাইছো? সারা জীবন সংসারের কাজকর্ম করেই যাচ্ছি। একদিন বাপের বাড়ি যেতে চাইলে, এটাও না করবে। পাইছো টা কি তুমি?”
আর অনুমতি চাওয়া মাত্রই, আপনি যদি হাসিমুখে অনুমতি দিয়ে দেন, বউ বলবে, ” ও… আমি চলে গেলে, তুমি খুব খুশি। তাই না? এমন একটা ভাব করছো যে, আমি বাপের বাড়ি গেলেই তুমি বাঁচো!” আপনার বউকে নিয়ে কোথাও যদি বেড়াতে না যান, বউ বলবে, ” আচ্ছা, আমাকে কি তোমার মানুষ মনে হয় না? আমারও তো ইচ্ছা হয়, মাঝে মাঝে বেড়াতে যাই, কোথাও থেকে ঘুরে আসি!” continue reading

৩৮০

ব্লগার ভাই

৫ বছর আগে লিখেছেন

যে জেলার মেয়েদের বিয়ে করলে সংসার সুখের হয় !

১//যশোর-খুলনার মেয়েরা অনেক সুন্দরী। যশোরের মেয়েরা কুটনামিতে খুব ওস্তাদ হয়, প্রচুর মিথ্যা কথা বলে। আর শ্বশুরবাড়ীর লোকজন সহ্যই করতে পারেনা। পরকিয়াতেও ওস্তাদ যশোরের মেয়েরা। (আংশিক ব্লগারের মতামত।)
২//চট্টগ্রামের মেয়েরা বাইরের জেলার ছেলেদের ব্যাপারে আগ্রহী নয়। কিছুটা কনজারভেটিভ।
৩//সিলেটী মেয়েরা পর্দানশীল বেশী। সিলেটি মেয়েরা সাধারণত বাইরের জেলা তে বিয়ে করতে যায় না। আত্মীয়দের মধ্যে থাকতে পছন্দ করে। সিলেটী মেয়েরা ছ্যাচড়া। (আংশিক ব্লগারের মতামত।)
৪//পুরান ঢাকার মেয়েরা খুবই দিলখোশ। ঢাকার অন্য এলাকার মেয়েরা জগাখিচুরি
৫//খুলনার মেয়েরা স্বামী অন্ত :প্রাণ। খুলনার মেয়েরা ফ্যামিলির ব্যাপারে একটু সিরিয়াস টাইপের হয় ৷(আংশিক ব্লগারের মতামত।)
৬//উত্তর বঙ্গের মেয়েরা কোমলমতী হয় এবং বেকুব ও... continue reading

৪৪২

ব্লগার ভাই

৫ বছর আগে লিখেছেন

আশ্চর্যজনক সব সত্য তথ্যের সমাহার। দেখুনতো আপনি জানেন নাকি?

সবাই কেমন আছেন? আজ আপনাদের সাথে কিছু আশ্চর্যজনক সত্যি তথ্য শেয়ার করব। Believe it or not. তথ্যগুলো পেয়েছি অনলাইন ঢাকা গাইড ডট কম সাইট থেকে। তবে চলুন জেনে নেই …
> আমরা তো খাবার খেয়েই ভাবি কাজ শেষ কিন্তু এ খাবার পুরোপুরি হজম করতে প্রায় সাড়ে পাঁচ ঘণ্টা সময় লাগে।
> ফ্লেমিঙ্গো পাখি তখনই খেতে পারে যখন তাদের মাথা পুরোপুরি উলটো করে ফেলে।
> মানুষের চোখ ৫৭৬ মেগা পিক্সেল। একজন স্বাভাবিক মানুষ মিনিটে ১২ বার চোখের পলক ফেলে এবং একদিনে দশহাজার বার।
> চোখের কর্ণিয়া একমাত্র টিস্যু যার রক্তের প্রয়োজন হয় না। চোখ ২ মিলিয়ন কর্মরত প্রত্যঙ্গ এর... continue reading

৫৭১

মোহাম্মদ শেমভীল হোসেন

৫ বছর আগে লিখেছেন

স্টুডেন্ট লাইফের থিম সং !!!

চার বছরে প্রতিদিন সিক্সটিন সিক্সটিন
ঘন্টা ধরে আড্ডা হাউ এক্সাইটিং !
এক্সাম ইজ ওয়েটিং
টেনশান টেনশান।
ঢিং ঢিটাং ঢিং ঢিং ঢিং ঢিং ঢিং ঢিং
কাল পরীক্ষা হই হই
নোটখাতাটা গেল কই,
কাল পরীক্ষা হই হই
সিজিপিএ গেল কই।
Whole  সেমিস্টার টাঙ্কি মারিং টাঙ্কি মারিং
ব্লকবাস্টার বাঁশ ওয়েটিং বাঁশ ওয়েটিং,
সব পোলাপান শাউটিং বুমবাস্টিং রকিং
নেতারা সব ডেয়ারিং
সব টিচারই হিয়ারিং।
কালকে হবে  ফাইনাল এক্সাম
দুঃখের সীমা নাই,
সাদা খাতা জমা দেব
একি  সাথে  সবাই।
 
নাই  নাই  আশা যে  নাই
যাই যাই পালিয়ে যাই,
চল সবাই  একি  সাথে
ফেল মারার নিশান উড়াই।
ঢিং ঢিটাং ঢিং ঢিং ঢিং ঢিং ঢিং ঢিং
কাল পরীক্ষা হই হই
নোটখাতাটা গেল কই,
কাল পরীক্ষা হই হই
পড়াশুনা... continue reading

৪৮৮

রোদের ছায়া

৫ বছর আগে লিখেছেন

ছড়াগুচ্ছ- উষ্ণতা

১।
রোদের তাপে চারপাশেতে
ফুটছে যেন খই
বাজিয়ে মাদল মেঘের দল
আসলি তোরা কই?

২।
বৈশাখ এল কালবৈশাখী
আসতে গেলো ভুলে
তপ্ত হাওয়া যাচ্ছে বয়ে
রমনা বটমূলে ।

৩।
ভীষণ গরম কি করি ভাই
বরফ মেশাই পানিতে
এই গরমে সুস্থ্য থাকার
উপায় হবে জানিতে।
continue reading

১০ ৫২৬

দেওয়ান কামরুল হাসান রথি

৫ বছর আগে লিখেছেন

ছবির নাম কমু না - মুভি রিভিউ

কালকে প্রস্তর যুগের একটা সিনেমা দেখলাম। সিনেমাটি দেখে আমি দারুন পুলকিত রোমাঞ্চিত এবং শিহরিত। নায়ক নায়িকার নাম কমু না। ছবির নাম কমু না।

ছবির গল্পটি দারুণ, বৈচিত্র্যময় এবং এক কথায় অসাধারণ। কাহিনীর সার সংক্ষেপ, কাঠুরিয়ার ছেলের সাথে গ্রামের চেয়ারম্যানের মেয়ের অসম ফিল্মি ভালোবাসা নিয়ে এই অমর প্রেমের কাহিনী। আমি কিছু খণ্ড খণ্ড অংশ আপনাদের কাছে তুলে ধরছি।

কাহিনীর প্রথম পার্ট
চেয়ারম্যান সাহেবের মেয়ে ঢাকাতে পড়াশুনা করেন। তিনি গ্রামে বেড়াতে এসেছেন সাথে তার কলেজে পড়ুয়া সইদের নিয়ে। এক বিকেলে মেয়েটি তার সইদের নিয়ে গ্রামের মধ্যে ঘুরতে ঘুরতে পথ ভুলে বনে প্রবেশ করেন। এমন... continue reading

৫৬৬

ছড়াবাজ

৫ বছর আগে লিখেছেন

ব্যাডলাক খারাপ ছিল

(হাতি মার্কা পোস্ট কিন্তু )
একদিন ভোর বেলা পেলে চা'র তেষ্টায়,
গেলো মনু রাস্তার ওপারের ছাপড়ায়;
চা'র সাথে ডাইলপুরী, আরো সাথে সস্,
পানে ছিল জর্দা, ধোঁয়া ছাড়ে ফস্।
এর মাঝে সেথা এল রোগা আর পটকা,
ছোটোখাটো লোক এক, মনে লাগে ঝটকা।
লোক দেখে নয় সেতো, ফ্যামিলির কথা,
দুই ভাই এক বোন, সেথা আকুলতা!!
... ... ...
... ... ...
"একটু চেপে এদিক এসো, কিরনমালার ভাই,
এইখানেতে শুষ্ক মরু, একটু পানি চাই।
যত্ত খুশি খাওগে হেথায়, চা পুরি আর কলা,
ঠান্ডা পেটে চিন্তা করে, বুইঝো আমার জ্বালা।"
গুরু যখন ব্যস্ত এ্যাত, রসের আলাপ কাজে,
বাগড়া দিতে হাজির সেথা, পুঁচকে ছোঁড়া বাজে!
বললো,... continue reading

৪৭৭