"ক্রিকেট" বিভাগের পোস্ট ক্রমানুসারে দেখাচ্ছে

হামি্দ

৫ বছর আগে লিখেছেন

চার ছক্কা হই হই বল গড়াইয়া গেল কই

চার ছক্কা হই হই বল উড়াইয়া গেল কই.............
চার ছক্কা হই হই বল গড়াইয়া গেল কই .......... 
চার ছক্কার চোখ ধাঁধানো ক্রিকেট দিয়ে মানুষকে মাতাতেই মূলত ক্রিকেটে এসেছে টি টুয়েন্টি ফরমেট। আর এই টুয়েন্টি ফরমেট ক্রিকেটের বিশ্বের সবচেয়ে বড় আসর বসেছে বাংলাদেশ। দেশ এখন মেতে আছে ক্রিকেট উৎসবে। ফ্লাশ মব জিনিশটা আমার কাছে নতুন । টি টুয়েন্টি বিশ্বকাপ বাংলাদেশ ২০১৪ উপলক্ষে চারদিকে ফ্লাশ মবের ধুম। 
একটা সময় ছিল আমরা যখন অনেক ছোট। ক্রিকেটে বাংলাদেশের অবস্থান তেমন একটা উল্লেখযোগ্য ছিল না। তখন প্রথম প্রথম ক্রিকেট বুঝতে শিখছি কেবল।পাড়ার ফেভারিট বড় ভাইরা পাকিস্তানের সাপোর্ট করত। তখন ভারত পাকিস্তান ক্রিকেট ম্যাচ আমাদের দেশে এক অন্য... continue reading

৪৭৩

তানভীর

৫ বছর আগে লিখেছেন

শুভ কামনা টাইগারদের জন্য

অনেক বাধা-বিপত্তি, অনেক আলোচনা-সমালোচনা , অনেক জয়-পরাজয় পেরিয়ে আজকের আমাদের এই অবস্থান। পেছনের সব কিছু ভুলে সামনের দিকে এগিয়ে যাও, দেখিয়ে দাও পৃথিবীকে আমরা আরও কি করতে পারি!!! বাঘের গর্জনে প্রকম্পিত কর পুরো পৃথিবী!!! তোমাদের শক্ত থাবায় ক্ষত-বিক্ষত কর শত্রু শিবির!!! মনে রেখ তোমরা শুধু পনেরো জন সৈনিক নও,তোমাদের সাথে আছে ষোল কোটি বাঙালি!!!!! শুধু সামনের দিকে এগিয়ে যাও......।।
                                                   শুভ কামনা তোমাদের জন্য!!!!!
continue reading

৪৮৩

মাহবুবুন নূর মেহেদী

৫ বছর আগে লিখেছেন

অবহেলায় শহীদ চান্দু স্টেডিয়াম

বগুড়ার শহীদ চান্দু স্টেডিয়াম ৮ বছর ধরে কোন আন্তর্জাতিক খেলা না হওয়ায় অবহেলায় পড়ে আছে। সংস্কার ও খেলার অভাবে আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি হারানোর ভয়ও বাড়ছে। তবে এ ব্যাপারে কতপক্ষের কোন নজর নেই।
প্রায় ২০ কোটি টাকা দিয়ে নির্মিত এই স্টেডিয়ামটি ২০০৪ সালে আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি পায়। বাংলাদেশের প্রায় সব খেলোয়াড় এই মাঠ ও পিচের প্রশংসা করেন। এমনকি ধারাভাষ্য দিতে এসে ক্লাইভ লয়েড ও ওয়াসিম আকরাম এই মাঠের পিচের প্রশংসা করেন। উদ্বোধনের পর এখানে ১ টি টেস্ট ও ৫ টি ওয়ানডে ম্যাচ পরিচালনা করা হয়।
২০০৬ সালে প্রথম ওয়ানডে ম্যাচে শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে হারলেও দ্বিতীয় ওয়ানডে ম্যাচে শ্রীলঙ্কাকে ৪ উইকেটে প্রথম হারায়... continue reading

৫১৭

তানভীর

৫ বছর আগে লিখেছেন

ক্রিকেট আমার অহংকার!

সাল ১৯৯৭,জয় করলাম ICC Cricket Trophy। সেই থেকে গুটি গুটি পায়ে এগিয়ে চলা আমাদের। বিশ্ব পেল নতুন এক ক্রিকেট প্রিয় জাতি! ১৯৯৮ সালে দেখা পেলাম প্রথম ODI জয়! আমাদের কাছে প্রথম ধরাশায়ী হল কেনিয়া ! জয়ের শুরুটা সেখানেই ! সন ১৯৯৯, প্রথমবারের মত World Cup এ অংশগ্রহণ করলাম এবং প্রথমবারেই বিশ্বসেরা দলের একটি পাকিস্তানকে হারিয়ে বিশ্বকে শুনিয়ে দিলাম বাঘের গর্জন! বাঘের হুংকারে কেপে উঠলো গোটা বিশ্ব ! ২০০০ সালে টেস্ট স্ট্যাটাস পাওয়ার পর থেকে আরও দুর্বার গতিতে ছুটতে লাগলাম আমরা!!!!!
 
দেশের মাটিতে প্রথমবারের মত ODI তে জয়ের দেখা পেলাম ২০০৪ সালে ! এবারের শিকার আরেক ক্রিকেট পরাশক্তি ভারত... continue reading

৫২০

দেওয়ান কামরুল হাসান রথি

৫ বছর আগে লিখেছেন

গর্জে উঠো বাংলাদেশ।

কালকে ২০১৪ এর টি-২০ বিশ্বকাপ এর পর্দা উঠতে যাচ্ছে। কোয়ালিফাইং গ্রুপগুলোর মধ্যে দিয়ে প্রথম খেলা শুরু হবে। দুটি গ্রুপ থেকে যারা চ্যাম্পিয়ন হবে তারা মূল দলগুলোর সাথে খেলার সুযোগ পাবেন।

স্বাগতিক দেশ হিসাবে আমরাই প্রথম ম্যাচ খেলবো আর আমাদের প্রতিপক্ষ দল হল আফগানিস্তান। আজকে নানা পত্রিকা মারফত জানতে পারলাম এবং বুঝতে পারলাম এশিয়া কাপে আমাদের কে হারিয়ে আফগানিস্তান এখন ফ্যান্টাসির রাজ্যে বিচরণ করছে এবং হোটেল এ বসিয়া এলিস ইন দ্য ওয়ান্ডারল্যান্ড দেখা শুরু করে দিয়েছে।

তাদের দলীয় ক্যাপ্টেন নানারকম পত্র পত্রিকায় যা বিবৃতি দিচ্ছে তা পড়ে মনে হচ্ছে আমরা নিতান্ত এক সাধারণ টীম এবং... continue reading

৩৭৬

মিসির আলি

৫ বছর আগে লিখেছেন

প্রিয় টাইগারস, হতাশ করিস না।

আফগানিস্তান ক্রিকেট টিমের জন্যে একটু মায়াই লাগছে। এত্ত চমৎকার সব প্লেয়ার যাদের মধ্যে রয়েছে ভালো মানের ৫/৬ জন অলরাউন্ডার, গুড পেস এ্যাটাক যেখানে সাপুর জাদরান ১৪০কিঃমিঃ++ তে অগ্নি ঝরাতে প্রস্তুত ,রয়েছে হার্ড হিটারের ছড়াছড়ি আর বুদ্ধিদীপ্ত ক্যাপ্টেন্সি। সব মিলিয়ে অসাধারন একটি দল আর টিম কম্বিনেশন টাও দারুন। নিজেদের দিনে এরা যে কোন দেশকে পরাজয়ের গ্লানিতে ডোবাতে পারে। এরা মূল পর্বে খেলতে পারলে যে কোন বড় টিমের দুঃস্বপ্ন হতে পারে।
কিন্তু তাদের পক্ষে এর কিছুই করা সম্ভবপর হচ্ছেনা । কারন তাদের কোয়ালিফাইং ম্যাচ খেলতে হচ্ছে যেখানে তাদের প্রতিপক্ষ অদম্য টাইগারেরা । যারা মুখিয়ে আছে জয়ের নেশায় , উন্মাত্ত হয়ে আছে... continue reading

৪০৪

রাজু আহমেদ

৫ বছর আগে লিখেছেন

সাবাস বিসিবি ! সাবাস !

 
 
    সর্বোচ্চ ৭৫,০০০ টাকা এবং সর্বনিম্ন ২,০০০ টাকা টিকেটের শুভেচ্ছা মূল্য !! আসন্ন টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপ ক্রিকেটের উদ্ভোধনী অনুষ্ঠান দেখতে হলে, এই পরিমান টাকায় টিকিট কেটে দর্শকদের স্টেডিয়ামে ঢুকতে হবে । বাংলাদেশ এখন আর গরীব দেশ নেই ! এদেশের মানুষ হাজার হাজার টাকা ব্যয়ে মানুষ শত মিনিটের নাচ-গান দেখতে পারে । অথচ মাত্র ৭৫ টাকার অভাবে একটি ছেলে একটি নতুন শার্ট গাঁয়ে জড়াতে না, ৭৫০ টাকার অভাবে একজন শিক্ষার্থীর লেখাপড়া বন্ধ হয়ে যায়, ৭৫০০ টাকার অভাবে একজন অসহায় পিতা তার সন্তানের বাল্য বিবাহ রোধ করতে পারে না । সেই দেশে একজন সুপথে-বিপথের ধনাঢ্য ৭৫,০০০ টাকা ব্যয়ে ভারতের এ আর রহমান,... continue reading

৩৯৯

রাজু আহমেদ

৫ বছর আগে লিখেছেন

আসন্ন টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপে বাংলাদেশের জন্য শুভ কামনা

 
বিশ্বের বিভিন্ন ক্রিকেট খেলুড়ে দেশের মধ্যে ভারতীয় উপমহাদেশে ক্রিকেট নিয়ে মাতামাতির মাত্রাটা বেশি । আবার ভারত-পাকিস্তান-শ্রীলঙ্কার চেয়ে বাংলাদেশের ক্রিকেটমোদীরা ক্রিকেট নিয়ে একটু বেশিই মেতে থাকে । আর সেটা যদি হয় ক্রিকেটের সর্বশেষ সংস্করণ টি-টুয়েন্টির ধামাক্কা ধুম-ধাম তবে তো  কথাই নাই । বাংলাদেশীদের পরিচিতি বিশ্বের সর্বত্র পৌঁছানোর পিছনে ক্রিকেটের ভূমিকা সবচেয়ে বেশি । ক্রিকেটের নতুন পরাশক্তি হিসেবে বাঙালী টাইগাররা বার বার বিশ্বকে জানান দিয়েছে, দাড়াও ! আমরাও আসছি । ক্রিকেটের সাবেক পরাশক্তি অস্ট্রেলিয়া, বর্তমান পরাশক্তি ভারতসহ বিশ্বের সকল দলকেই দু’একবার নাকানি চুবানী দিয়েছে বাংলার তরুন তুর্কীরা । তাইতো বাংলাদেশের বিরুদ্ধে খেলতে মাঠে নামার আগে বিশ্বের ক্রিকেট পরাশক্তিগুলো যেন একটু বাড়তি... continue reading

৪৩৩

মোঃ ফাহাদ খন্দকার

৫ বছর আগে লিখেছেন

সমালোচক জাতি

 
তাজউদ্দীন আহমেদের ছেলে সোহেল তাজ দেশের মানুষের অধিক সমালোচনার উপর টিকতে না পেরে দেশ ছেড়েছেন।
 
আমারো তাই  করা লাগবো।
 
আমরা সবকিছু নিয়ে বাড়াবাড়ি করতে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করি।
 
***পাকিস্তান '৫২ সালে ও '৭১ সালে যা করে তা ক্ষমার অযোগ্য। এর জন্য তারা জঙ্গিদের কর্তৃক সাঁজা এখনো পাচ্ছে।
*** আর ভারত বিএসএফ দিয়ে চালাচ্ছে আমাদের উপর অত্যাচার। ফেলানিকে ঝুলিয়ে তারা বন্ধুদেশের উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছিল। তিস্তার পানি সহ আমাদের নানান ব্যাপারে তারা এখনো আমাদের কু-নজরে দেখে থাকে।
পাকিস্তানের তৎকালীন কুশাসন আর স্বাধীন বাংলাদেশের উপর নির্যাতন কোনটা বড় সেটা জনগণই জানে। 
এখন জ্ঞানী... continue reading

৪৩৭

দেওয়ান কামরুল হাসান রথি

৫ বছর আগে লিখেছেন

আমাদের ক্রিকেটীয় শনির দশা দূর হবে কবে?

ভাই আমি আমার দেশের খেলোয়াড় দের কোন দোষ দিবো না শ্রীলংকা সফর থেকে যদি আপনারা যদি হিসাব করেন দেখতে পাবেন ভাগ্যদেবতা আমাদের সহায় নয়।

আমার সল্প ক্রিকেটীয় মস্তিষ্ক দ্বারা আমি যা পর্যালোচনা করলাম আমি আপনাদের সাথে তা শেয়ার করলাম হয়তো অনেকের সাথে আমার মতের অমিল হতে পারে। আমি আমাদের কিছু ব্যাড লাক তুলে ধরলাম।

বাংলাদেশ শ্রীলংকা সফর
টেস্ট খেলার কথা বাদ দিলাম কারন এখানে শ্রীলংকা একটি টেস্ট খেলাতে জিতেছে আর আমরা একটি তে ড্র করেছি।

১.প্রথম টি ২০ আমাদের জেতা ম্যাচ , শেষ বলে কনফার্ম নো কিন্তু থার্ড অ্যাম্প্যায়ার কি কারনে... continue reading

৩৫৬