"অনুবাদ" বিভাগের পোস্ট ক্রমানুসারে দেখাচ্ছে

মোঃ রওশানুজ্জামান কানন

২ বছর আগে লিখেছেন

learning

learning gives creativity .Creativity leads to thinking.Thinking leads to knowledge.Kwonledge makes you great. Make yourself valuable ,otherwise you will search for other. No one can teach you ,if you are not interested to learn continue reading

৩৩৪

নিঃসঙ্গ মেষপালক

৩ বছর আগে লিখেছেন

তোমার জন্য

তোমার জন্য
বস্তিবাসী ইহুদী হয়ে যাবো আর নাচবো
আর আমার দুমড়ানো মোচড়ানো হাতে পায়ে মোজায় ঢেকে ঢেলে দিবো বিষ
এই শহর জুড়ে।
তোমার জন্য
আমি হব পথভ্রষ্ট ইহুদী আর বলে দিবো পূরাণে তালমুদে থাকা সেই
স্প্যানিশ অর্চকের কথা
এবং যেখানে লুকিয়ে থাকে
শিশুদের হাড়।
তোমার জন্য
আমি হব এক মহাজনী ইহুদী আর ধ্বংসের দিকে টানবো
এক বৃদ্ধ শিকারি রাজাকে এবং তার যবনিকা ঘটাবো।
তোমার জন্য
আমি হব এক সুবিশাল হৃদয়ের ইহুদী এবং থিয়েটারে চিৎকার করে কাঁদবো
আমার মায়ের জন্য
এবং বিক্রি করে দিবো সমস্তই
কাউন্টারের নিচে থেকে।
তোমার জন্য
আমি এক ডাক্তার ইহুদী হব এবং খুঁজে বেড়াবো
আবর্জনা স্তুপের মাঝে
আবার সেলাই... continue reading

৪০০

সাইফুল ইসলাম

৩ বছর আগে লিখেছেন

কবি রুমি 'র বই আমেরিকায় সবচেয়ে বেশি বিক্রিত

কবি ও সুফি দার্শনিক জালাল আদ-দ্বীন মুহাম্মদ রুমি ১২০৭ খ্রিষ্টাব্দের ৩০ সেপ্টেম্বর জন্মগ্রহণ করেন। মার্কিন লেখক ব্র্যাড গুচ রুমির একটা জীবনীগ্রন্থ লেখার কাজ শুরুর পর তাঁর জন্মস্থান বর্তমান তাজিকিস্তানের ছোট্ট গ্রাম বক্স থেকে শুরু করে উজবেকিস্তানের সমরখন্দ ও বোখারা, ইরান থেকে শুরু করে সিরিয়া ও তুরস্ক চষে বেড়িয়েছেন। রুমির তরুণ বয়সের পড়াশোনার তীর্থ সিরিয়ার দামেস্ক ও আলেপ্পোতেও ঘুরে বেড়িয়েছেন ব্র্যাড। তাঁর শেষ গন্তব্য ছিল তুরস্কের কুনিয়া শহরে। জীবনের শেষভাগের প্রায় ৫০ বছর কাটানোর পর তুরস্কের এই শহরেই মারা যান রুমি। এখানে রুমির মাজারে তাঁর মৃত্যুদিবসে এখনো প্রতি বছরের ১৭ ডিসেম্বর দরবেশদের এক মহোৎসব বসে রুমির স্মরণে। নানা দেশের রাষ্ট্রপ্রধান... continue reading

৫৩৩

রুহুল আমিন

৪ বছর আগে লিখেছেন

সখীনামা

'... অবশেষে তাহাদের মাঝে শান্তিচুক্তি স্বাক্ষরিত হইলো। দীর্ঘ দুইটি রজনীর নিদারুণ কস্টকর প্রতিটি ক্ষণ, তাহাকে যে কি পরিমাণ জ্বালাইয়াছে- সেই কথাটি সখীকে বুঝাইবার  আপ্রাণ প্রয়াস চালাইয়াছিল সে। তবে সখি সেই তাহার বিগত সময়ের বিশ্বাসের উপরেই অটল রহিলো। কিন্ত সখী তাহার সখাকে ও ছাড়িতে নারাজ; একই সাথে বিশ্বাসের রজ্জুটাকে ও।
একি মহাবিপদ হাজির হইয়াছে সখির সামনে?
কিভাবে সে সখা ও তাহার নিজের ভিতরের সখিরুপ কে যাহা সম্পুর্ন দুইটি ভিন্ন মতাদর্শে চালিত হইতেছে, তাহার গতিরোধ করিবেক? কোনোভাবেই সখা ও বুঝিতে চাহিল না। সে সখিকে তিনটি শর্তে আবার কাছে টানিতে ইচ্ছুক। দুইটি শর্ত ইতোমধ্যে সখিকে জানানো হইয়াছে। তিন নাম্বারটি লইয়া সখি একটু... continue reading

৫৪৩

সেলফি কুলফি

৪ বছর আগে লিখেছেন

এবং একটি কবিতা

কয়েক যুগ পেরিয়ে গেলে খেয়াল হলো যে কবিতা লিখি না
মাথার ভেতর এই খেয়াল মাটিতে পড়ার আগেই আমি দুই ভাগ হয়ে
তর্কে নামলাম। এক ভাগ বলে ওঠে হয়তো আপ্নে কখনই
কবিতা লিখতে পারতেন না। শুনে অন্য ভাগ তেড়ে আসে,
বেশি বুঝেন ইচ্ছা হয় না তাই লিখি না নাহলে দেখিয়ে দিতাম।
আমি দুই ভাগের তর্ক শুনি, কমলার জুস খাই
জুস বেশ তেতো লাগলে ভাবি একটু চিনি মেশালে মন্দ হতো না। অর্ধেক আমার সাথে বাকি আধখানা আমি
গলার রগ ফুলিয়ে চেঁচিয়ে-
একাকার, তর্ক চললো কয়েকশ’ বছর
তারপর টের পাই এ তর্কে নষ্ট সময় – নষ্ট জীবন – নষ্ট আয়ু
... continue reading

৫৯৩

এই সব দিনরাত্রি

৪ বছর আগে লিখেছেন

বুড়ো সবসময় ঠিক কাজটি করে

হ্যান্স ক্রিশ্চিয়ান এন্ডারসন
রুপান্তরঃ এই সব দিন রাত্রি
আজ তোমাদের একটা গল্প শোনাবো। আমি যখন অনেক ছোট ছিলাম তখন আমার মা আমাকে এই গল্পটা বলেছিল। যখনই আমি গল্পটা নিয়ে ভাবি তখনি এটা আরও আকর্ষণীয় হয়ে ওঠে আমার কাছে। কিছু কিছু গল্প আসলে কিছু বিশেষ মানুষের মত, যত পুরোনো হয়; তত তার আকর্ষণ বাড়তে থাকে!
তোমরা গ্রামের বাড়িতে কুঁড়েঘর নিশ্চয়ই দেখেছ; ঐ যে খড়ের চালা, শোলার বেড়া, চালের উপর  লতাপাতার জঙ্গল! তার মধ্যে বাসা বেধে থাকে একটা বক! কুঁড়েঘরের সাথে একটু বাড়তি অংশে ঘেরা দেয়া মাটির চুলো। পুরো ঘরটার উপরে ছায়া হয়ে বেড়ে ওঠা ছাতিম গাছ। কোনে একটা ছোট্ট... continue reading

৮৫৯

সৃষ্টি প্রকাশনী

৫ বছর আগে লিখেছেন

প্রচ্ছদ আহ্বান

বইয়ের নাম: সমন্বয়, বইয়ের ধরন: কাব্য গ্রন্থ। (এখনও লেখা জমা নেওয়া হচ্ছে)
"সমন্বয়" একটি নতুন বইয়ের নাম যার লেখক সংখ্যা প্রায় ৭০ জন। বইটিতে থাকবে ছড়া ও কবিতা। লেখা সংগ্রহ এবং বাছায় কাজ দ্রুত গতিতে চলছে।

বইটির জন্য একটি প্রচ্ছদ আহ্বান করা হচ্ছে। যারা প্রচ্ছদ শিল্পে নিজের নাম লিখাতে চান তারা ডিজাইন পাঠিয়ে দিতে পারেন। আমাদের বইটি নভেম্বর মাসে প্রকাশিত হবে।
বইটি সম্পাদনা করবেন- মো. আহসান হাবীব ও মোহাম্মদ মিয়াজী।

আগ্রহী ডিজাইনারা ডিজাইন পাঠাবেন অক্টবর মাসের ৩১ তারিখ পর্যন্ত যে কোন সময়।

ডিজাইন আমাদের ফেজবুক পেজে পোস্ট করবেন এবং সফট... continue reading

৫৬০

ফাতিন আরফি

৫ বছর আগে লিখেছেন

আগামীকালই মুক্ত হবে প্যালেস্টাইন

_____মূলঃ মায়ের জেইন(গান)
_____অনুবাদঃ ফাতিন আরফি(কবিতা)

প্রতিটি দিন একে—অন্যকে আমরা বলি, আজই শেষ দিন; আগামীকালই আমরা অবাধে ফিরবো বাড়ি—শেষত বন্ধ হবে এইসব— আগামীকালই মুক্ত হবে প্যালেস্টাইন!

আমার কোন বাবা-মা নেই যে চোখের জল মুছে দেবে – এজন্য আমি কাঁদবো না! আমি ভয়ার্ত হই কিন্তু আমি ভয় প্রকাশ করবো না— আমার শিরকে উঁচু রাখবো— আমার হৃদয়ের গভীরে কোন সন্দেহ নেই— আগামীকালই মুক্ত হবেই প্যালেস্টাইন!

আকাশে সেই রকেট ও বোমাগুলো জ্বলজ্বল করতে দেখেছিলাম আমি; যেমন করে সূর্যের আলোতে জ্বলজ্বল করে বৃষ্টির ফোটা— যা কেঁড়ে নিয়েছে আমার প্রিয়তম মানুষগুলোকে—ধ্বংস করেছে আমার স্বপ্নগুলো চোখের নিমেষে! কি... continue reading

৪৮২

ফাতিন আরফি

৫ বছর আগে লিখেছেন

আমরা হার মানবো না___________

_____মূলঃ মাইকেল হাট (গান)
_____অনুবাদঃ ফাতিন আরফি (কবিতা) 
গভীর রাতে চোখ ধাঁধানো আলো আজ
প্রজ্বলিত করলো গাজার আকাশ, 
আত্মরক্ষার জন্য ছুটছে মানুষ;
বেঁচে আছে নাকি মরে গেছে—
তা না জেনেই... 
ওরা এসেছিল ট্যাংক ও বিমান নিয়ে 
ধ্বংসাত্মক লেলিহান অগ্নিশিখা নিয়ে
এবং বিধ্বস্ত হলো সবই—
কেবলমাত্র একটি কন্ঠ ছাড়া;
ধোয়াচ্ছন্ন অনিশ্চয়তার মাঝেও উচ্চারিত—
“আমরা হার মানবো না—
যুদ্ধ ছাড়া আজ রাতে হার মানবো না,
তোমরা আমাদের মসজিদ, ঘরবাড়ি, স্কুল
জ্বালিয়ে দিতে পার কিন্ত আমাদের
প্রেরণার কখনও মৃত্যু ঘটবে না—
আজ রাতে গাজায় আমরা হার মানবো না!”
নারী ও শিশুরা খুন হয়েছে— 
রাতের পর রাত সমান্তরালে হত্যাযজ্ঞ চলেছে 
অথচ দূর থেকে তথাকথিত বিশ্ব নেতারা 
বিতর্কে মেতেছে— কে সঠিক কে ভুল! 
কিন্তু ব্যর্থ হল সব শক্তিহীন... continue reading

১৪ ৫৩৭

তাহমিদুর রহমান

৫ বছর আগে লিখেছেন

হারুকি মুরাকামি'র গল্প : বেকারিতে হামলা/অনুবাদ: দিলওয়ার হাসান

হারুকি মুরাকামি'র গল্প : বেকারিতে হামলা   সেদিন আমাদের পেটে কোনো দানাপানি ছিল না; বরং বলা ভালো, আমরা উপোস দিচ্ছিলাম। কিন্তু আমাদের ওই সর্বগ্রাসী ক্ষুধার জন্ম কোথায়? এ কথা তো ঠিক, খাবার-দাবারের অভাব আমাদের ছিল। কেমন করে খাবারের অভাব হলো? এর কারণ হচ্ছে এই যে আমাদের হাতে কোনো মুদ্রা অর্থাৎ কোনো টাকা-পয়সা ছিল না। এর কারণ হয়তো এই যে আমাদের ভেতর কল্পনাশক্তির অভাব ছিল। না, ক্ষুধার জন্য আমাদের কল্পনাশক্তির অভাবই সরাসরি দায়ী।
ঈশ্বর, মার্ক্স আর জন লেনন—সবাই মারা গেছেন। যেভাবেই হোক, আমরা ভীষণ ক্ষুধার্ত এখন; আর এ কারণে একটা অপরাধই করতে যাচ্ছি প্রায়। ক্ষুধার কারণে আমরা অপরাধ করতে যাচ্ছি না, বরং... continue reading

৬০৫