Site maintenance is running; thus you cannot login or sign up! We'll be back soon.

দীপঙ্কর বেরা

৪ বছর আগে

মানুষের খোঁজে ( সৃজনশীল ব্লগিং প্রতিযোগিতা ২০১৬ ক্যাটাগরি ২ গল্প)

 

 

চিত্রিতা অন্ধকার চিনত কিন্তু ভয় পেতনাকেন না ওখানে যারা যেত বা থাকত, তাদের সবাই তো চেনাপাড়ারমাঝে মধ্যে বাইরেরও দেখেছে

তাছাড়া এসব তো এখন সর্বত্রএকে কেউ আর অন্ধকার বলেও না

বলে - একটু আধটু রিলাক্স করতেই হয়জীবনের এটাই তো চার্মকি হবে নিরামিষ থেকে!

সন্ধ্যেতে পড়ে ফেরার সময়, দুপুরে বাজারে যাওয়া আসায়, কিংবা বন্ধুদের সাথে চলাফেরার আড্ডায় এসব ওপেন দেখেছে চিত্রিতাকোনভাবে কারও কাছে অন্ধকার বলে চিহ্নিত হয়নি

কিন্তু চিত্রিতা এর ওর মুখে মুখে খবরে স্কুলের বন্ধুদের কাছে জেনেছে বুঝেছে, কিংবা ভিড়ের মাঝে বা একা একা চলার পথে কিছু অপ্রাসঙ্গিক মন্তব্যে বুঝেছে, এ অন্ধকারসেখানে কখনও কখনও হঠাৎই চেনা পরিচয় অচেনা হয়ে যায়

মা বলেছে একটু সহনশীল হতে হয়

বন্ধুরা বলেছে মেয়ে হওয়ার এটাই সাজা

বাবা দাদাকে তো বলাই যায়নিপাড়া প্রতিবেশী মিশ্রমেয়েরা যেন কেউ কেউ এটাই চায় – ওরে আমার সতী রে! কেউ নিজের ঘরে দেওয়াল তুলে নিরাপদ ভেবেছেকেউ বেপরোয়াআর ছেলেরা সব দায়, দোষ ঘুরেফিরে মেয়েদের দিকে তাক করেই রেখেছে

চিত্রিতা মায়ের কোলে মুখ গোঁজেআবছা অন্ধকারে চোখ খোলে। ঘ্রাণে কিছু মানুষের গন্ধ পায়তারা কেউ ছেলে বা মেয়ে নয়  

                     ---

২ Likes ২ Comments ০ Share ৩৪৩ Views