বাংলাদেশের খেলা আর আমার কিছু মুল্যায়ন

আপনারা সবাই জানেন আজকে বাংলাদেশের খেলা ছিল । গতকালকে ৮৬/১ এই অবস্থা থেকে আজ দিন শেষে আমাদের অবস্থান হচ্ছে ৪০৯/৮ । মাহমুদুল্লাহ আর আল-আমিন কালকে থেকে আবার ব্যাটিং শুরু করবেন । তো সব মিলিয়ে ঢাকা টেস্ট এর বিপর্যয়ের পরে আমাদের অবস্থা তুলনামূলক ভাবে ভালোই বলতে হবে । তবে দিনের একেবারে শেষ ভাগে ২ টা উইকেট হারিয়ে আমরা অনেকখানি ব্যাকফুটে চলে গিয়েছি । ঐ ২ টা উইকেট হাতে থাকলে কালকে আমরা অনেক সুবিধাজনক অবস্থানে থেকে দিন শুরু করতে পারতাম । কিন্তু সেইটা যখন হয়নি তাই না বলাটাই ভালো । আমাদের কালকের টার্গেট হওয়া উচিত অন্তত ৪৭০-৫০০ রান করা । আমার মনে হয় রিয়াদ আর আল-আমিন এই কাজটা করতে পারবে । এছাড়াও আব্দুর রাজ্জাক ও মোটামুটি চালাতে জানে । এরপরে আমাদের উচিত হবে ওদের রান চেক দেওয়া । কোনোভাবেই ওদের রানরেট ৩.৫ এর উপরে উঠতে দেওয়া যাবে না । ওরা যদি জিতার জন্য খেলা শুরু করে তাহলে অবশ্যই কিছুটা চালিয়ে খেলে তাড়াতাড়ি একটা বড় স্কোর করতে চাইবে । কিন্তু যখন ওরা রান পাবে না তখন অতি আক্রমণাত্মক খেলতে গিয়ে উইকেট বিলিয়ে দিতে পারলেও পারে । বাংলাদেশের এখন উচিত জয়ের চিন্তা বাদ দিয়ে ড্র এর চিন্তা করা । এই অবস্থাতে জয়ের চিন্তা হয়তো দলের জন্য বাড়তি চাপ হয়ে দেখা দিতে পারে । তাই আমার পরামর্শ যে আপাতত ড্রয়ের চিন্তা করেই রক্ষণাত্মক খেলা ।

এখন আসি আজকের দিনের খেলায় । আজকে শামসুর আর ইমরুল ২ জনই অসাধারণ খেলা খেলেছে । তবে ২ জনের আউট হওয়ার ধরণে একটু অসন্তুষ্টি থাকছেই । এরপরে মমিনুল আর সাকিব এর ক্ষেত্রেও সেই একই ব্যাপার । তবে নাসিরের টা আমি বলব একটু দুর্ভাগ্যজনক । আর মুশফিক এর টাতে কিছু বলার নাই । তবে ঢাকা টেস্ট এর হতাশাজনক ফলাফলের পরেই এইভাবে ফিরে আসাটাও আমাদের অনেক বড় সফলতা । আশা করি ম্যাচ টা মুশফিক বাহিনী ড্র করেই আসতে পারবে ।

আর এরপরেই আমাদের স্বল্প দৈর্ঘের খেলাতে ফিরতে হবে । তবে টি-২০ তে মুশফিক না থাকা টা একটা বড় ধাক্কাই হবে তাও ঘরের মাটিতে আশা করি বাঘেরা ছেড়ে কথা বলবে না । তাই সবশেষে আশার বাণী শুনিয়েই আপনাদের থেকে বিদায় নিচ্ছি । 

০ Likes ৮ Comments ০ Share ৪৩১ Views